পর্ন তারকা’র কাছে মামলার খরচ ফেরত চেয়ে নতুন বিতর্কে ট্রাম্প

5

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে চলতি বছরের শুরুতেই পর্ন তারকা স্টোর্মি ড্যানিয়েলসের করা মানহানি মামলা আদালতে খারিজ হয়ে যায়। আদালতের সেই রায়ের পরেই নতুন করে বিতর্কে জড়ালেন ট্রাম্প। গত সোমবার স্টোর্মির কাছ থেকে ৩ লাখ ৩৪ হাজার মার্কিন ডলার দাবি করেছেন ট্রাম্পের আইনজীবীরা। সেই মামলা লড়ার খরচ বাবদ এই অর্থ তার কাছে দাবী করেন তারা।

ট্রাম্পের আইনজীবীরা যুক্তিতর্ক উপস্থাপন করে লস এঞ্জেলসের একটি আদালতে এ বিষয়ে দাবি করে জানান, তাদের মামলা লড়ার খরচ অস্বাভাবিক হারে বৃদ্ধি পাওয়ার পেছনে স্টোর্মি ড্যানিয়েলসের আইনজীবীর কৌশল দায়ী। তাই সেজন্য এই অর্থ স্টোর্মিকেই পরিশোধ করতে হবে।

স্টোর্মি ড্যানিয়েলসের দাবি ছিল ট্রাম্পের সঙ্গে তার যৌন সম্পর্ক ছিল। ২০১১ সালে এ বিষয়ে মুখ না খুলতে তাকে হুমকিও দেওয়া হয়। সেসময় হুমকিদাতার একটি স্কেচ আঁকান তিনি। সে ছবি শেয়ার করে টুইটারে ট্রাম্প লেখেন, এই ব্যক্তি স্টোর্মির সাবেক জীবনসঙ্গী।

এরপর ট্রাম্পের বিরুদ্ধে মানহানী মামলা ঠুকে দেন স্টোর্মি ড্যানিয়েলস। তিনি দাবি করেন, ট্রাম্প এ বছরের এপ্রিলে তাকে নিয়ে যে টুইট করেছেন তাতে তার অবমাননা হয়েছে। কিন্তু আদালত রায় প্রদান করে, ট্রাম্পের এ টুইট মানহানীকর নয়, অতিয়োশক্তি ছিল। তাই আদালত স্টোর্মি ড্যানিয়েলসের করা মামলা খারিজ করে দেয়। এরপর ট্রাম্পের আইনজীবীরা এখন এই মামলার পেছনে খরচ হওয়া তাদের ডলার ফেরত চান।

Leave A Reply

Your email address will not be published.